মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

ইতিহাস

সহকারী ব্যবস্থাপক,টেলিকম,বিটিসিএল নরসিংদীর কার্যালয়:

 

    সহকারী ব্যবস্থাপক, টেলিকম  নরসিংদী জেলার আটটি এক্সচেঞ্জ ও কিশোরগঞ্জ জেলার একটি এক্সচেঞ্জ নিয়ে গঠিত।

 

নরসিংদী জেলা

 

বিভিন্ন নদ-নদী পরিবেষ্টিত জেলা নরসিংদী ।  এ জেলা টেক্সটাইল মিলের জন্য বিখ্যাত। পাওয়ার লুমের সাহায্যে এখানে  উৎপন্ন হরেক রকম ডিজাইনের অনেক কাপড়। এ জেলার বাবুরহাট হল কাপড়ের প্রধান বিক্রয় কেন্দ্র। এখানে উৎপন্ন হয় প্রচুর পরিমাণে তরি-তরকারী যা চলে যায় প্রধানত ঢাকা ও সিলেটে। এ ছাড়াও বর্তমানে গার্মেন্টসসহ বিভিন্ন কলকারখানা গড়ে উঠছে দ্রুত । বিভিন্ন আন্দোলন সংগ্রামে ও জড়িয়ে আছে এ জেলার নাম। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার অঙ্গীকার বাস্তবায়নে নরসিংদী জেলাও পিছিয়ে নেই। এ জেলায় রয়েছে আটটি অত্যাধুনিক ডিজিটাল এক্সচেঞ্জ। ডিজিটাল বাংলাদেশের মহাসড়কে উঠতে এ আটটি এক্সচেঞ্জ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে। বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকারের ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের মাননীয় মন্ত্রী জনাব রাজিউদ্দিন আহমেদ রাজুর প্রচেষ্টার ফলে এ জেলার নরসিংদী,মনোহরদী,রায়পুরা,বেলাব,ঘোড়াশাল,হাসনাবাদ ও মাধবদীর বিটিসিএল গ্রাহকগণ ঢাকা মাল্টি-এক্সচেঞ্জের সুবিধা ভোগ করছেন।  

 

১) নরসিংদী এক্সচেঞ্জঃ-(সাংহাইবেল  S-12 ও জেডটিই Z X J-10)

   ১৯৫৬ ইং সালে  ৪+ ৫০ লাইনের ম্যাগনেটো এক্সচেঞ্জ দিয়ে যাত্রা শুরু হয় নরসিংদী এক্সচেঞ্জের। ১৯৬৬  সালে  এটি ৮+ ১০০ লাইনের সি.বি. এক্সচেঞ্জে রূপান্তরিত হয়। ১৯৬৮ ইং সালে ১৬+২০০ লাইনের সি.বি. এক্সচেঞ্জে উন্নীত হয়। ১৯৭০ ইং সালে  ৪০০ লাইনের সি.বি. এক্সচেঞ্জে উন্নীত হয়।  ১৯৭৩ ইং সালে এটি ৬০০ লাইনের ই.এম.ডি তে উন্নীত করা হয়। ১৯৭৮ ইং সালে ৬০০ লাইনের ই.এম.ডি কে ১০০০ লাইনে উন্নীত করা হয়। ১৯৯৭ ইং সালে ১০০০ লাইনের ই.এম.ডি কে ১২০০ লাইনে উন্নীত করা হয়।  ২০০০ সালের মধ্যে গ্রাহক চাহিদা বৃদ্ধির কারণে এটিকে ধাপে ধাপে ১৭০০ লাইনে সম্প্রসারন করা হয় । ১২ ই জুলাই ২০০১ ইং সালে সাংহাই-বেল কোম্পাণীর এস-১২ এক্সচেঞ্জ দ্বারা ২৫৫০ লাইনের ডিজিটালে রূপান্তর করা হয়। ২০০৫ ইং সালে জেডটিই জেডএক্সজে-১০ এর 1000 লাইনের আরো নূতন একটি ডিজিটাল এক্সচেঞ্জ স্থাপন  করা হয়। বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকারের ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের মাননীয় মন্ত্রীর নির্দেশে  জেডটিই এক্সচেঞ্জটিকে ১৯৬০ লাইনে সম্প্রসারিত করা হয়। পরবর্তীতে গত ডিসেম্বর ২০১০ খ্রিঃ আর ও ২০০০ লাইন বৃদ্বি করা হয়। ফলে দুটি  এক্সচেঞ্জ মিলে নরসিংদী এক্সচেঞ্জের বর্তমান ধারণ ক্ষমতা ৬৫১০ লাইন। মাননীয় মন্ত্রীর নির্দেশে নরসিংদীকে গত ২০০৯ সালের ২২ জুলাই ঢাকা মাল্টি এক্সচেঞ্জের আওতায় আনা হয়। বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকারের আমলে জুন ১১ইং হতে ৩০০ লাইন Broad band Internet চালু করা  হয়েছে।

     উল্লেখ্য যে,01/01/2010 সালে নরসিংদী বিভাগীয় অফিস প্রতিষ্ঠিত হওয়ার পর বিটিসিএল এর অর্গ্রোনোগ্রাম অনুযায়ী বিভাগীয় অফিস বিলুপ্ত হয়ে 01/07/2018খ্রি: তারিখ গাজীপুর এর সাথে যুক্ত করা হয়েছে। ০১/০৭/২০১৮ খ্রি: এর পর থেকে সহকারী ব্যবস্থাপক,টেলিকম,বিটিসিএল নরসিংদী’র কার্যালয় হিসাবে কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছে।

 

২) মাধবদী এক্সচেঞ্জ (মাধবদী গ্রোথ সেন্টার):- জেট টি ই ( Z X J-10)

     ০৪/০৭/১৯৯৬ সালে  ৫+৫০ লাইনের  ম্যাগনেটো দিয়ে যাত্রা শুরু হয় মাধবদী এক্সচেঞ্জের।০৬/০৯/১৯৮০ সালে  ম্যাগনেটো থেকে  ২০০ লাইনে সিবি এক্সচেঞ্জে রূপান্তরিত হয়। ১২/১/১৯৮৯ ইং সালে ৪০০ লাইনে সিবি এক্সচেঞ্জে উন্নীত হয়।  ৫/১/১৯৯৩ ইং তারিখে ৪০০ লাইনের অটো ই.এম.ডি তে উন্নীত করা হয়। ১/১১/২০০০ ইং সালে ৪০০ লাইনের অটো ই.এম.ডি কে ৭০০ লাইনে উন্নীত করা হয়।  অবশেষে ২০/১০/২০০৬ ইং তারিখে জেডটিই এক্সচেঞ্জের ১২১২ লাইনের ডিজিটালে রূপান্তর করা হয়। এক্সচেঞ্জটি মাননীয় মন্ত্রীর নির্দেশে ঢাকা মাল্টি এক্সচেঞ্জ এর আওতাভুক্ত  হয় ০১-১১-২০০৯খ্রিঃ তারিখ।

             

     ৩) ঘোড়াশাল এক্সচেঞ্জ (পলাশ উপজেলা):- সাংহাইবেল S-12

     ১৮/৫/১৯৬৭ ইং তারিখে ৫+৫০ লাইনের ম্যাগনেটো দিয়ে ঘোড়াশাল এক্সচেঞ্জটি যাত্রা শুরু করে।১২/৯/১৯৭৮ ইং সালে ৫০ লাইনের ম্যাগনেটো থেকে ১০০ লাইনে সিবি তে রূপান্তর করা হয়। ১/১২/১৯৯৮ ইং সালে ১০০ লাইনের সিবি কে ২০০ লাইনের অটো ই.এম.ডি উন্নীত করা হয়। ২৮/১১/২০০২ ইং সালে ২০০ ই.এম.ডি থেকে ৫১২ লাইনে ডিজিটালে উন্নীত করা হয়। ৩০/০৩/২০০৬ ইং সালে এটিকে ১২৮০ লাইনের ডিজিটালে সম্প্রসারন করা হয়। এক্সচেঞ্জটি মাননীয় মন্ত্রীর নির্দেশে ঢাকা মাল্টি এক্সচেঞ্জ এর আওতাভুক্ত  হয় 10-08-২০12খ্রিঃ তারিখ।

 

     4) রায়পুরা এক্সচেঞ্জ (রায়পুরা উপজেলা):-জেট টি ই (Z X J-10)

      ৭/৪/১৯৬৯ ইং ৫+৫০ লাইনের ম্যাগনেটো দিয়ে যাত্রা শুরু হয়।১/৭/১৯৮৬ ইং সালে ১০+১০০ লাইনের ম্যাগনেটোতে সম্প্রসারন করা হয়।২৮/৮/১৯৯৬ ইং সালে ১৬+ ২০০ লাইনের সি.বি.তে রূপান্তর করা হয়। ১২/৭/২০০১ ইং সালে ৪০০ লাইনের ডিজিটালে উন্নীত করা হয়। এক্সচেঞ্জটি মাননীয় মন্ত্রীর নির্দেশে ঢাকা মাল্টি এক্সচেঞ্জ এর আওতাভুক্ত  হয় ০9-08-২০12খ্রিঃ তারিখ।

 

5) শিবপুর এক্সচেঞ্জ (শিবপুর উপজেলা):- সাংহাইবেল S-12

      ১৯/৩/১৯৮৪ ইং সালে ৪+৬ লাইনের ম্যাগনেটো দিয়ে যাত্রা শুরু হয়। ১/৮/১৯৮৪ ইং সালে ৪+৮০ লাইনে ম্যাগনেটোতে সম্প্রসারন করা হয়। ১৭/৯/১৯৯৩ ইং সালে ৮+ ১০০ লাইনের সি.বি.তে রূপান্তর করা হয়। ১৯/৭/২০০২ ইং সালে ২৫৬ লাইনের ডিজিটালে উন্নীত করা হয়। ২৯/৩/২০০৬  সালে ১০২৪ লাইনের ডিজিটালে সম্প্রসারন করা হয়।

    

6 ) মনোহরদী এক্সচেঞ্জ (মনোহরদী উপজেলা):-জেট টি ই (Z X J-10)

      ১৯৬৮ ইং সালে ৪+২০ লাইনের ম্যাগনেটো দিয়ে যাত্রা শুরু। ২৫/৫/১৯৮৫ ইং সালে ৪+৪০ লাইনের ম্যাগনেটো সম্প্রসারন করা হয়। ১১/৮/১৯৯৬ ইং সালে ১০০ লাইনের সি.বি.তে রূপান্তর করা হয়।১১/১১/২০০১ ইং সালে ৩০০ লাইনের ডিজিটালে উন্নীত করা হয়। ৩০/০৮/২০০৫ ইং সালে ৫০০ লাইনের ডিজিটাললে সম্প্রসারন করা হয়। এক্সচেঞ্জটি মাননীয় মন্ত্রীর নির্দেশে ঢাকা মাল্টি এক্সচেঞ্জ এর আওতাভুক্ত  হয় ০9-08-২০12খ্রিঃ তারিখ।

 

7) বেলাব এক্সচেঞ্জ (বেলাব উপজেলা)ঃ-জেট টি ই (Z X J-10)

      ২৫/৫/১৯৮৫ ইং সালে ৪+৪০ লাইনের ম্যাগনেটো যাত্রা শুরু। ২১/৪/১৯৯৯ ইং সালে ৮+ ১০০ লাইনের সি.বি.তে রূপান্তর করা হয়। ৫/০৯/২০০৬ ইং সালে ৩২৮ লাইনের ডিজিটাললে উন্নীত করা হয়।এক্সচেঞ্জটি মাননীয় মন্ত্রীর নির্দেশে ঢাকা মাল্টি এক্সচেঞ্জ এর আওতাভুক্ত  হয় ০9-08-২০12খ্রিঃ তারিখ।

           

8) হাসনাবাদ এক্সচেঞ্জ (হাসনাবাদ ও গ্রাথ সেন্টার):- জেট টি ই (Z X J-10)

     ১৯৬৮ ইং ৫+২০ লাইনে ম্যাগনেটো দিয়ে যাত্রা শুরু হয়। ১৯৯৮ ইং সালে ১০০ লাইনের সি বি তে রূপান্তর করা হয়। ২০০৯ সালে ৩৩৬ লাইনের ডিজিটালে উন্নীত করা হয়। এটি মাননীয় মন্ত্রীর নির্দেশে ঢাকা মাল্টি এক্সচেঞ্জের আওতাভুক্ত হয ১/১১/২০০৯ খ্রি: তারিখে।

 

কিশোরগঞ্জ জেলা

 

৯) ভৈরব এক্সচেঞ্জ(ভৈরব পৌরসভা) - (হোয়াওয়ে-CC08)

নরসিংদী প্রশাসনিক  বিভাগের অন্তর্গত একমাত্র এক্সচেঞ্জ ভৈরব। ১৯৬৫ ইং সালে ৮+১০০ লাইনের সি.বি দিয়ে যাত্রা শুরু হয়। ১৬/১২/১৯৭২ ইং সালে পরবর্তীতে এটিকে  ৩০০ লাইনের অটো ই.এম.ডি তে রূপান্তর করা হয়। ১১/০৫/১৯৮৫ ইং সালে পরবর্তীতে এটিকে  4০০ লাইনের অটো ই.এম.ডি তে উন্নীত করা হয়। ১৬/০৬/১৯৯১ ইং সালে পরবর্তীতে এটিকে  ৫০০ লাইনের অটো ই.এম.ডিতে উন্নীত করা হয়। ০১/১১/২০০০ ইং সালে পরবর্তীতে এটিকে  ৭০০ লাইনের অটো ই.এম.ডিতে উন্নীত করা হয়। ২১/১০/২০০৬ ইং সালে ৫০০০ লাইনের ডিজিটালে রূপান্তর করা হয়। জুন ১১ইং হতে 1০০ লাইন Broad band Internet চালু করা  হয়েছে। এক্সচেঞ্জটি মাননীয় মন্ত্রীর নির্দেশে ঢাকা মাল্টি এক্সচেঞ্জ এর আওতাভুক্ত  হয় 10-08-২০12খ্রিঃ তারিখ। 21/08/2012 ইং শটসার্কিটে এক্সচেঞ্জটির কার্যক্রম বন্ধ হয়ে গেলে 26/08/2012  ইং পূনরায় 2000 লাইনের ক্যাপাসিটি দিয়ে  কার্যক্রম শুরূ করে।

 

 

তথ্য কণিকা

 

1। ৬০০ টাকা ডিমান্ড নোট চালু হয় জুলাই ২০০৮ সালে।

 

2। সকল এক্রচেঞ্জে ফ্রি ডিমান্ড নোট চালু হয়  ০১/০৭/২০০৯ সালে এবং ৩০/১০/২০০৯ পর্যন্ত বজায় থাকে।

 

3। পুনরায় (জেলা সদর বাদে) ১৫ই নভেম্বর/০৯ হতে ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০১০ পর্যন্ত ফ্রি সংযোগ চালু করা হয় ।

 

4। নরসিংদীতে ডিভিশন অফিস স্থাপনের সরকারী অনুমোদন হয়  ২৩/১২/২০০৯ তারিখে।

 

৫। নরসিংদী ডিভিশন অফিস বিলুপ্ত হয়ে সহকারী ব্যবস্থাপকের অফিস হিসাবে চালু হয় 01/07/2018 তারিখে।

 

ছবি


সংযুক্তি




Share with :

Facebook Twitter